নীড় পাতা / জাতীয় / শুরু হলো সোনার বাঙলা ‘পরিচ্ছন্নতার যুদ্ধ’

শুরু হলো সোনার বাঙলা ‘পরিচ্ছন্নতার যুদ্ধ’

পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন বাংলাদেশ গড়তে অঙ্গীকার এবং সেখানে সেখানে ময়লা না ফেলার শপথ পাঠের মধ্য দিয়ে শুরু হলো ‘পরিচ্ছন্নতা যুদ্ধ’। সম্প্রতি জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় এই শপথ অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বাবু, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম, মুক্তিযোদ্ধা, চিত্র নায়ক রিয়াজ ও বিভিন্ন চলচ্চিত্র অভিনেতা-অভিনেত্রী, পরিচ্ছন্নতাকর্মী এবং বাংলাদেশ স্কাউটস সদস্যরা। শপথ পাঠ অনুষ্ঠানে শপথ পাঠ করান গৃহায়ন ও গণপূর্তমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম, ‘‘পরিচ্ছন্নতার যুদ্ধের’’ দায়িত্ব দেয়া হয় বাংলাদেশ স্কাউট সদস্যদের।

উপস্থিত সকলেই এক সাথে শপথ পাঠ করেন। শপথ পাঠে বলা হয়, ‘আমি শপথ করছি যে, যেখানে-সেখানে আর কোনোদিন ময়লা-আবর্জনা ফেলব না। বীর মুক্তিযোদ্ধারা যে দেশ স্বাধীন করে আমাদের উপহার দিয়েছেন, সেই দেশ পরিষ্কার রাখার দায়িত্ব আজ থেকে আমি নিলাম। ঘোষণা করলাম,পরিচ্ছন্নতার যুদ্ধ। এবারের অঙ্গীকার, পরিচ্ছন্ন সোনার বাংলা গড়ার অঙ্গীকার।’

অনুষ্ঠানে মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেন, ‘পরিচ্ছন্নতাকর্মীদের সবাইকে সাথে নিয়ে আমরা দেশটাকে পরিচ্ছন্ন রাখতে চাই। যারা এই পরিচ্ছন্নতায় জড়িত, আপনারা সবাই, আমরা একসাথে কাজ করছি। আমরা সকলে মিলে সারাদেশকে পরিচ্ছন্ন করার যুদ্ধে আছি।’

সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বলেন, ‘আমাদের পরিষ্কার যে শহরটা সকালে ঘুম থেকে উঠে দেখি, কারা এর নেপথ্যে আছে? সেই নেপথ্যের কারিগর কারা? নেপথ্যের নায়ক-নায়িকা কারা? তারা সেই আমাদের পরিচ্ছন্নকর্মীরা। মধ্যরাতে তারা মাঠে নামে, ভোর পর্যন্ত কাজ করে। তারা নগরীকে বসবাসযোগ্য নগরীতে পরিণত করেন। আমি তাদের সাধুবাদ জানাই।’

পরিচ্ছন্নতা যুদ্ধের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর চিত্রনায়ক রিয়াজ বলেন, ‘মুক্তিযোদ্ধারা দেশকে যুদ্ধ করে স্বাধীন করেছেন। আমি যদি একটি যুদ্ধ করতে পারতাম! আমাদের নতুন প্রজন্ম যদি একটি যুদ্ধ করতে পারত! আজ সেই সুযোগ এসেছে। আমাদের পরিচ্ছন্ন সোনার বাংলা গড়ার যে যুদ্ধ, আমরা সবাই মিলে আজকে থেকে সেই যুদ্ধে একসাথে সামিল হব।’

আরও দেখুন

নলডাঙ্গার খাজুরা ইউনিয়নে উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক:নাটোরের নলডাঙ্গা উপজেলার খাজুরা ইউনিয়ন পরিষদে ২০২৪-২০২৫ অর্থবছরের ৬৩ লাখ ৮৪ হাজার ২৮৭ টাকার …