বৃহস্পতিবার , জুলাই ৭ ২০২২
নীড় পাতা / উত্তরবঙ্গ / রাবিতে দিনব্যাপী শব্দকলা আন্তর্জাতিক লেখক উৎসব অনুষ্ঠিত

রাবিতে দিনব্যাপী শব্দকলা আন্তর্জাতিক লেখক উৎসব অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাবি
এপার বাংলার ও ওপার বাংলার কবি সাহিত্যিক লেখক ও শিল্পী গবেষকদের রাজশাহী বিশ্ব বিদ্যালয়ে শব্দকলা আন্তজার্তিক লেখক উৎসব। গতকাল দিনব্যাপী রাবি’র শহীদুল্লাহ কলাভবনের ৩০৬ গ্যালারিতে দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন রাবি সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. ফখরুল ইসলাম।

বিশিষ্ট ইতিহাসবিদ প্রফেসর ড. আবদুর রহমানের সভাপতিত্বে এ পর্বে অতিথি ছিলেন প্রফেসর ড. জিএম শফিউর রহমান, ড. কাঞ্চন কুমার ভৌমিক, শিল্পী মুকুল চক্রবর্তী, কবি আলমগীর কবির হৃদয় প্রমুখ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন শব্দকলাপ্রধান ড. মাহফুজুর রহমান আখন্দ।

দ্বিতীয়পর্বে ‘সাহিত্যে নান্দনিকতা ও মূল্যবোধ’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। প্রফেসর ড. মোহাম্মদ মুহিবউল্যাহ ছিদ্দিকীর সভাপতিত্বে প্রধান আলোচক ছিলেন কথাশিল্পী নাজিব ওয়াদুদ। প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন প্রফেসর ড. মাহফুজুর রহমান আখন্দ। আলোচক হিসেবে ছিলেন প্রফেসর ড. কামাল উদ্দিন, বিশিষ্ট লেখক জিয়াউল হক, নির্ঝর সম্পাদক কবি জাইদুর রহমান, প্রফেসর ড. এএইচএম তাহমিদুর রহমান, ড. গোবিন্দ প্রসাদ কর প্রমুখ।

সেমিনারে বক্তাগণ বলেন, বিশ্বায়নের প্রভাবে বাংলাভাষা চর্চার যেমন অবারিত সুযোগ তৈরি হয়েছে তেমনি নানামুখি সংকটের মুখোমুখি হবার ঝুঁকিও বহুগুণে বৃদ্ধি পেয়েছে। সেইসাথে মানবিক মূল্যবোধ তৈরি ও ক্ষয়িষ্ণুতার ক্ষেত্রেও বিশ্বায়নের এ প্রভাব অত্যন্ত প্রবল। তাই সমাজসচেতন নাগরিক হিসেবে বাংলাভাষাভাষি প্রত্যেক লেখককে দায়বদ্ধতা কাঁধে নিয়ে নান্দনিক সাহিত্যসৃষ্টির মাধ্যমে মূল্যবোধ তৈরির জন্য নিষ্ঠার সাথে শিল্প-সাহিত্য ও সংস্কৃতিচর্চায় আত্মনিয়োজিত থাকতে হবে।

মধ্যাহ্নভোজের পরে শুরু হয় লেখা পাঠ। এ্যালবাম সম্পাদক কবি মনজু রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অতিথি ছিলেন কবি মুকুল কেশরী, কবি প্রত্যয় হামিদ, কবি কামরুল আজাদ, গল্পকার আসাদুল্লাহ মামুন, কবি সোহেল মাহবুব, কবি ইসাহাক আলী, কথাকার সুকেস কুমার মÐল, কবি পুস্পিতা চট্টপাধ্যায় প্রমুখ।

অনুষ্ঠান শেষ হয় শব্দকলা সাহিত্য পদক বিতরণের মাধ্যমে। সমাপনী পর্বে সভাপতি ছিলেন প্রফেসর ড. মাহফুজুর রহমান আখন্দ। প্রধান অতিথি ছিলেন রাবি কলা অনুষেদের ডীন প্রফেসর ড. মো. ফজলুল হক। অতিথি ছিলেন প্রফেসর ড. আবদুর রহমান, প্রফেসর ড. কাজী মো. মোস্তাফিজুর রহমান, প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আলমগীর স্বপন, কবি আলাউদ্দিন আহমেদ, ড. সীমা শারমিন, কবি অনু চৌধুরী প্রমুখ। অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ ও ভারতের মোট বাইশজন বিশিষ্ট ব্যক্তিকে বিভিন্ন বিষয়ে অবদানের স্বীকৃতি স্বরুপ শব্দকলা সাহিত্য পদক প্রদান করা হয়।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ এবং ভারতের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে আগত দেড়শতাধিক কবি , লেখক, সাহিত্যিক গবেষক ও শিল্পী অংশ নেন ।

আরও দেখুন

অতিরিক্ত টোল আদায়ে আবাদপুকুর হাট ইজারাদারকে এবার ৫০হাজার টাকা জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাণীনগর: নওগাঁর রাণীনগর উপজেলার বৃহৎপশুর হাট আবাদপুকুর হাটে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান চালিয়েছে নওগাঁ জেলা এক্সিকিউটিভ …