বুধবার , জানুয়ারি ২৬ ২০২২
নীড় পাতা / আইন-আদালত / নির্দোষ প্রমাণের সুযোগ চায় অভিযুক্ত জুয়েলের পরিবারঃ মিলছে না আইনজীবী সমিতির সাড়া

নির্দোষ প্রমাণের সুযোগ চায় অভিযুক্ত জুয়েলের পরিবারঃ মিলছে না আইনজীবী সমিতির সাড়া

নিজস্ব প্রতিবেদক

উপযুক্ত আইনি সহায়তার অভাবে এক অভিযুক্ত আসামীকে নির্দোষ প্রমাণের সুযোগ পাচ্ছে না তার পরিবার। আইনজীবীদের দ্বারে দ্বারে ঘুরেও মিলছে না সহযোগিতা। এ বিষয়ে জেলা আইনজীবী সমিতির কাছে লিখিত আবেদন করেও সাড়া মেলেনি। এক্ষেত্রে আসামী হিসেবে যে আইনী সহায়তা পাওয়ার অধিকার আছে সেটা পাচ্ছে না বলে অভিযোগ করেন আসামীর পরিবার।

জানা যায়, আইনজীবী সমিতির সদস্য এ্যাড. নিয়ন হোসেনকে পারিবারিক কলহের জেরে মারপিটের অভিযোগে দিঘাপাতিয়া গ্রামের মৃত রিয়াজ উদ্দিনের  ছেলে জালাল উদ্দিন এবং তার ছেলে সজীব ও জুয়েল হোসেনকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করে নাটোর থানা পুলিশ। এ বছর ফ্রেব্রুয়ারির ৭ তারিখে আটক পূর্বক বিজ্ঞ আদালতে আসামীদের বিপক্ষে রাষ্ট্র পক্ষের রিমান্ডের আবেদনসহ বিজ্ঞ আদালত কর্তৃক রিমান্ড মঞ্জুরের প্রেক্ষিতে আসামী সজীব ও জুয়েলকে রিমান্ড মঞ্জুর করেন। এতে জেল হাজতে আসামীদের শারীরিক অবস্থা অত্যন্ত আশঙ্কাজনক হয়। এর প্রেক্ষিতে  আসামী জুয়েলের দাদা শ্বশুর মকসেদ আলী মন্ডল আসামীদের পক্ষে আত্মপক্ষ সমর্থনের উদ্দেশ্যে একজন আইনজীবী নিয়োগের জন্য নাটোর জেলা আইনজীবী সমিতির বরাবর একটি লিখিত আবেদন করেন। কিন্তু ভিকটিম এ্যাড. নিয়ন হোসেন আইনজীবী সমিতির সদস্য হওয়ায় কোন আইনজীবী তাদের আইনী সহায়তা দিতে পাশে দাঁড়াননি।

এ বিষয়ে আসামী জুয়েল হোসেনের আত্মীয় মকছেদ আলী মন্ডল বলেন, ‘আমার নাতনী জামাই জুয়েল সম্পূর্ণ নির্দোষ। কিন্তু ভিকটিম আইনজীবি হওয়ায় তাকে নির্দোষ প্রমাণের সুযোগ পাওয়ায় মুশকিল হয়ে পড়ছে। কোন আইনজীবি আমাদের আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দিচ্ছে না। আইনজীবী সমিতির কাছে লিখিত আবেদন করেও তারা সহযোগিতা করছে না। এটা সম্পূর্ণ একটি অমানবিক ঘটনা। এটা ন্যায়বিচার প্রাপ্তির অন্তরায় বটে। আমরা এর থেকে মুক্তি চাই। আমার নাতনী জামাইকে নির্দোষ প্রমাণের সুযোগ চাই।’

আরও দেখুন

নাটোরে করোনার সংক্রমণ হার গতকালের চেয়ে ১৪.৬৫ শতাংশ বেশি

নিজস্ব প্রতিবেদক:নাটোরে করোনার সংক্রমণের হার গতকালের চেয়ে ১৪.৬৫ শতাংশ বেশি। আজ ২৫ জানুয়ারি ৬৫ জনের …