নীড় পাতা / আইন-আদালত / আইন প্রয়োগ করে সবকিছুকে বাধ্য করা যায়না -জেলা প্রশাসক

আইন প্রয়োগ করে সবকিছুকে বাধ্য করা যায়না -জেলা প্রশাসক

নিজস্ব প্রতিবেদক, গুরুদাসপুরঃ
প্রথম শ্রেণির গুরুদাসপুর পৌরসভায় “পরিচ্ছন্ন গ্রাম-পরিচ্ছন্ন শহর” কর্মসূচির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে নাটোর জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শাহরিয়াজ পিএএ বলেছেন- আমরা আগে দুবেলা দুমুঠো খেতে পারতাম না। সেই আমাদের এখন অনেক পরিবর্তন হয়েছে। আচরণেরও পরিবর্তন হচ্ছে। অনেক দিনবদল হয়েছে। সেই ক্ষেত্রে আমাদের ঘরবাড়ি, আশপাশ, বাজার, রাস্তাঘাট ও নদী-নালা ময়লা আবর্জনামুক্ত রাখতে হবে। আইন প্রয়োগ করে সবকিছুকে বাধ্য করা যায়না। নিজে থেকে সচেতন হতে হবে। আমরা আরো সুন্দর দিনের প্রত্যাশা করি। উন্নত বিশে^র কাতারে যেতে হলে আমাদের আচরণের পরিবর্তন করতে হবে।

নাটোরের গুরুদাসপুর সরকারি পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সোমবার সকালে বর্ণাঢ্য র‌্যালি শেষে বেলুন উড়িয়ে কর্মসূচির উদ্বোধন শেষে ওই কথাগুলো বলেন জেলা প্রশাসক। ‘ময়লা আবর্জনা করব দূর-স্বচ্ছ রাখবো গুরুদাসপুর’ প্রত্যয় ব্যক্ত করে সভাপতির বক্তব্য দেন পৌর মেয়র মো. শাহনেওয়াজ আলী।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত জনতার উদ্দেশ্যে দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য দেন স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক মো. গোলাম রাব্বী পিএএ, উপজেলা চেয়ারম্যান মো. আনোয়ার হোসেন, ইউএনও মো. তমাল হোসেন, থানার অফিসার ইনচার্জ মোজাহারুল ইসলাম, ভারপ্রাপ্ত পৌর সচিব সাঈদ শাহরিয়ার, কাউন্সিলর সাহেদ আলী, চলনবিল প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এমএম আলী আক্কাছ প্রমূখ।

এর আগে ভাষা শহীদ, মুক্তিযোদ্ধা, শহীদ বুদ্ধিজীবী, বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের সকল শহীদের প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপনে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। অনুষ্ঠানটি পরিসঞ্চালনায় ছিলেন প্রভাষক তুহিন আব্বাসী।

জেলা প্রশাসক আরো বলেন- এক সময় এদেশে মাথাপিছু আয় ছিল ২শ ডলার। তবে উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় অল্পদিনের মধ্যে সেই মাথাপিছু আয় দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ডলার। এটা আমাদের অনেক বড় অর্জন। গুরুদাসপুর পৌরসভা শুধু পরিস্কার-পরিচ্ছনতায় নয় অন্যান্য সকল ক্ষেত্রে একটি মডেল পৌরসভা হিসেবে জাতীয় পুরস্কার অর্জন করবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

আরও দেখুন

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট থেকে আয় ৩০০ কোটি ছাড়িয়েছে: বিএসসিএল

বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেড (বিএসসিএল) জানিয়েছে, বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ তিন বছর ধরেই আয়ের ধারায় রয়েছে। এরই …